ব্যান্ডেজ পরে রোগী সেজে রাবির ভর্তি পরীক্ষার প্রক্সি দিতে এসে আটক চিকিৎসক

মাথায়, নাকে ও হাতে ব্যান্ডেজ লাগিয়ে অসুস্থ সেজে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) ভর্তি পরীক্ষায় প্রক্সি দিতে এসে আটক হয়েছেন এক চিকিৎসক। পরে তাকে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে এক বছরের কারাদণ্ড দিয়ে জেলে পাঠানো হয়েছে। মঙ্গলবার (২৬ জুলাই) বিশ্ববিদ্যালয়ের ‘এ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষার চতুর্থ শিফটে তাকে আটক করা হয়। পরে তাকে গ্রেফতার দেখিয়ে জেলে পাঠানো হয়।

আটক ব্যাক্তির নাম ডা. সমের রায়। তিনি খুলনা মেডিক্যাল কলেজের প্রাক্তন ছাত্র এবং খুলনার একটি বেসরকারি মেডিক্যাল কলেজের প্রভাষক দাবি করেছেন বলে জানিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের জনসংযোগ দফতর। জনসংযোগ দফতরের প্রশাসক অধ্যাপক প্রদীপ কুমার পাণ্ডে বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ‘রাহাত আমিন নামের একজনের হয়ে তিনি প্রক্সি দিতে এসেছিলেন। তার মাথায়, নাকে ও হাতে ব্যান্ডেজ পরা ছিল। তাকে আমাদের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক দফতরে থাকা চিকিৎসক গিয়ে দেখেও আসেন।’

তিনি আরো বলে, আটক যুবক নিজেকে খুলনার একটি মেডিক্যাল কলেজের প্রভাষক বলে দাবি করেছেন। তাকে এক বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। একইসঙ্গে যার হয়ে প্রক্সি দিতে এসেছিলেন সেই রাহাত আমিনকে এক মাসের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.