কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে নার্সিং ইনস্টিটিউটের তৃতীয় বর্ষের এক ছাত্রীর আত্মহত্যা

কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে নার্সিং ইনস্টিটিউটের তৃতীয় বর্ষের এক ছাত্রী গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। চাপড়া ইউনিয়নের সাঁওতা রাজপাড়া গ্রামে রোববার ভোড়ে মেয়েটি তার মামা বাড়িতে থাকাকালীন এই ঘটনা ঘটে। এ বিষয়ে কুমারখালী থানায় অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

এলাকাবাসী ও পারিবারিক সুত্রে জানা যায়, চাপড়া ইউনিয়নের সাঁওতা রাজপাড়া গ্রামের সিরাজুল ইসলামের মেয়ে রাফিজা খাতুন (২০) গতকাল শনিবার কুষ্টিয়া নার্সিং ইনস্টিটিউট থেকে সন্ধ্যার পর বাড়িতে ফিরলে তার মা বকাবকি করায় সে রাগ করে পার্শ্ববর্তী মামার বাড়িতে চলে যায়। এবং রাতের কোন এক ভাগে ফ্যানের সাথে রশি দিয়ে গলায় ফাস লাগিয়ে আত্নহত্যা করে।

রোববার ভোড়ে তার মামী তাকে ডাকাডাকি করে ঘর না খুললে এলাকাবাসীর সহায়তায় দরজা ভেঙে ভিতরে প্রবেশ করে তার মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়। কুমারখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কামরুজ্জামান তালুকদার জানান, এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গের উপস্থিতিতে ও পরিবারের সম্মতিতে লাশ দাফনের অনুমতি দেয়া হয়েছে। এবং এ ব্যাপারে কুমারখালী থানায় অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.